Templates by BIGtheme NET
Home » জেলার খবর » কুষ্টিয়া পৌরসভার নির্বাহী প্রকৌশলী ও তার স্ত্রীর নামে মামলা, অতঃপর কারাগারে

কুষ্টিয়া পৌরসভার নির্বাহী প্রকৌশলী ও তার স্ত্রীর নামে মামলা, অতঃপর কারাগারে

ক্রাইমভিশনবিডি ডেস্ক:

দেশের দুর্নীতি দমন কমিশনের দায়ের করা মামলায় কুষ্টিয়া পৌরসভার নির্বাহী প্রকৌশলী রবিউল ইসলামকে কারাগারে পাঠিয়েছেন কুষ্টিয়ার একটি আদালত। বৃহস্পতিবার (১১ নভেম্বর) আদালতের কার্যক্রমের ঠিক শেষ মুহূর্তে তাকে কারাগারে পাঠনোর আদেশ দেন কুষ্টিয়ার সিনিয়র জেলা ও দায়রা জজ আদালত। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন দুর্নীতি দমন কমিশন কুষ্টিয়ার সমন্বিত কার্যালয়ের আইনজীবী আল মুজাহিদ হোসেন মিঠু।

তবে এর আগে দুর্নীতি দমন কমিশন কুষ্টিয়ার সমন্বিত কার্যালয় থেকে নির্বাহী প্রকৌশলী রবিউল ইসলাম ও তার স্ত্রী কামরুন্নাহার আলপনার কাছে সম্পদের বিবরণী চাইলে তারা তাদের জ্ঞাত আয় হিসেবে ৩৬ লাখ টাকার তথ্য উপস্থাপন করেন। পরে দুদকের তদন্তে তাদের জ্ঞাত আয়ের বাইরে আরো ৫২ লাখ টাকার সম্পদের সন্ধান মেলে।

তারপরে এ বছরের ২৮ সেপ্টেম্বর কমিশনের উপ-সহকারী পরিচালক নীল কমল পাল কুষ্টিয়ার সিনিয়র দায়রা জজ আদালতে এ মামলা করেন। মামলায় বৃহস্পতিবার তিনি আদালতে হাজির হন। তবে এসময় তার স্ত্রী আদালতে ছিলেন না।

তবে দুদক সূত্রে জানা যায়, নির্বাহী প্রকৌশলী রবিউল ইসলামের স্ত্রী কামরুন্নাহার আলপনা কুষ্টিয়া শহরের একটি বেসরকারি কলেজের প্রভাষক পদে কর্মরত। অন্যদিকে, সার্ভেয়ার আব্দুল মান্নানের স্ত্রী রূপালী খাতুন তার আয়ের ৩২ লাখ টাকার একটি তথ্য উপস্থাপন করেন। দুদকের তদন্তে তার জ্ঞাত আয়ের বাইরে আরো ৭২ লাখ টাকার সন্ধান পাওয়া যায়। তিনি পেশায় একজন গৃহিণী।

তবে দুর্নীতি দমন কমিশন কুষ্টিয়ার সমন্বিত কার্যালয়ের আইনজীবী আল মুজাহিদ হোসেন মিঠু জানান, নির্বাহী প্রকৌশলী রবিউলের স্ত্রীর বিরুদ্ধে দুদকের আনীত অভিযোগের বিষয়টি আদালতের দৃষ্টিতে আনা হবে।

Facebook Comments Box